গাজায় যুদ্ধবিরতি নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের প্রস্তাবে রাশিয়া ও চীনের ভেটো

‘গাজাকে নিশ্চিহ্ন করে’ যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব, যুক্তরাষ্ট্রের ‘ভণ্ডামি’ পর্যবেক্ষণ করছে রাশিয়া
জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদে উত্থাপিত যুক্তরাষ্ট্রের প্রস্তাবে রাশিয়া ও চীনের ভেটো। ছবি: রয়টার্স

গাজায় যুদ্ধবিরতির বিষয়ে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদে উত্থাপিত যুক্তরাষ্ট্রের একটি প্রস্তাবে আজ শুক্রবার ভেটো দিয়েছে রাশিয়া ও চীন। 

এএফপির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ইসরায়েলকে কোনো প্রকার চাপে না রেখে নিরাপত্তা পরিষদে যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব আনায় ওয়াশিংটনকে উপহাস করে মস্কো জানিয়েছে যে, তারা যুক্তরাষ্ট্রের এ 'ভণ্ডামি' পর্যবেক্ষণ করছে।

এর আগে, নিরাপত্তা পরিষদে গাজায় যুদ্ধবিরতির একাধিক প্রস্তাবে ভেটো দিয়েছিল যুক্তরাষ্ট্র। 

আজ যুক্তরাষ্ট্রের প্রস্তাবে ভেটো দেয় রাশিয়া ও চীন, আলজেরিয়া বিপক্ষে ভোট দিয়েছে এবং গায়ানা বিরত ছিল। স্থায়ী সদস্য ফ্রান্স ও ব্রিটেনসহ নিরাপত্তা পরিষদের অন্য ১১ সদস্য পক্ষে ভোট দিয়েছে।

জাতিসংঘে রুশ রাষ্ট্রদূত ভাসিলি নেবেনজিয়া বলেন, 'ইসরায়েলের লাগাম টেনে ধরার জন্য যুক্তরাষ্ট্র কিছুই করছে না।'

'গাজাকে পৃথিবী থেকে কার্যত নিশ্চিহ্ন করে দেওয়ার পর' যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব আনায় ওয়াশিংটনকে উপহাসও করেন তিনি।

ভাসিলি নেবেনজিয়া বলেন, 'আমরা যুক্তরাষ্ট্রের চিরাচরিত এই ভণ্ডামি পর্যবেক্ষণ করছি।'

তিনি বলেন, 'আমেরিকানরা অতিমাত্রায় রাজনৈতিক, তাদের উদ্দেশ্য ভোটারদের নিয়ে খেলা এবং গাজায় যুদ্ধবিরতির কথা উল্লেখ করে তাদের সামনে একটি হাড় ছুড়ে মারা।'

'প্রস্তাবটি ইসরায়েলের দায়মুক্তি নিশ্চিত করবে। খসড়াতে তাদের অপরাধ মূল্যায়ন করা হয়নি', যোগ করেন তিনি।

জাতিসংঘে মার্কিন রাষ্ট্রদূত লিন্ডা থমাস-গ্রিনফিল্ড রাশিয়া ও চীনের ভেটোকে 'শুধু নিন্দনীয়ই' নয়, 'তুচ্ছ' বলে অভিহিত করেছেন।

তিনি বলেন, 'প্রস্তাবটি কেবল যুক্তরাষ্ট্র এনেছে বলেই রাশিয়া ও চীন এর পক্ষে ভোট দিতে চায়নি।'

'অগ্নিগর্ভ বক্তব্য না দিয়ে আসুন সৎ হোন। আমরা সবাই জানি যে, স্থায়ী কোনো শান্তি আনার জন্য রাশিয়া ও চীন কূটনৈতিকভাবে কিছুই করছে না', যোগ করেন তিনি।

Comments

The Daily Star  | English
MP Azim's name left out of condolence motion

Pillow used to smother MP Azim: West Bengal CID

Bangladeshi MP Anwarul Azim Anar was smothered with a pillow soon after he entered a flat in New Town near Kolkata, an official of West Bengal CID said today

14m ago