'ক্যালকুলেটিভ রিস্ক' নিয়ে খেলেছেন মুমিনুল

পঞ্চাশ করে পরের বলেই বাউন্ডারি মারতে গিয়ে আউট হন মুমিনুল
ছবি: ফিরোজ আহমেদ / স্টার

উইকেটে নেমে নিজের দ্বিতীয় বলেই উইকেট ছেড়ে বেড়িয়ে মারলেন বাউন্ডারি। একই কায়দায় একই ওভারে পেলেন ছক্কাও। এভাবেই চলল পুরো ইনিংসে। টেস্ট ম্যাচে ফিফটি পেলেন ৫৫ বলে। একের পর এক অহেতুক ঝুঁকির খেসারৎ দেন এর পরপরই। আরও একটি বাউন্ডারি মারতে গিয়ে হলেন আউট। অবিশ্বাস্য হলেও তিনি দলের অন্যতম অভিজ্ঞ ব্যাটার মুমিনুল হক। যিনি একসময় ছিলেন দলের অধিনায়কও।

শুধু মুমিনুল নয়, প্রায় একই ঢঙ্গে খেলেছেন বেশিরভাগ ব্যাটাররাই। যে বল অনায়াসে ছেড়ে দেওয়া যায়, সেই সব বলে মারতে গিয়ে দিয়েছেন আত্মাহুতি। অথচ মুমিনুলের মতে এই ধরনের শট ছিল কেবলই 'ক্যালকুলেটিভ রিস্ক'। আর এই ক্যালকুলেটিভ রিস্ক নিয়ে খেলাই তার জন্য 'নরমাল' ক্রিকেট। আর এই নরমাল ক্রিকেটার চক্করে খাঁদের কিনারে বাংলাদেশ দল। আরও একটি বড় হারের অপেক্ষায় আগামীকাল বুধবার পঞ্চম দিনে মাঠে নামবে বাংলাদেশ দল। 

ম্যাচ শেষে তার খেলার ধরণ নিয়ে প্রশ্ন করা হলে মুমিনুল বললেন, 'অ্যাগ্রেসিভ, আমার কাছে মনে হয় না যে অ্যাগ্রেসিভ... কেননা সেকেন্ড ইনিংসে উইকেটটা বেটার ছিল। আর আমি চেয়েছিলাম যে, শুধু অ্যাগ্রেসিভ না নরমাল ক্রিকেটটাই খেলার। যদি শুধু ব্লক ব্লক ব্লক খেলি তাহলে বোলারের একটা জায়গা স্পেস তৈরি হয়ে যায়। নরমাল ক্রিকেট… আপনি যদি পেস বলে খেলা দেখেন পেস বলে আমি কোনো রাশ শট যেগুলো বলে সেগুলো একটাও খেলি নি। স্পিনে আমার যেসব জায়গায় আমার জোন সেসব জায়গায় আমি ক্যালকুলেটিভ রিস্ক নিয়েছি।'

প্রথম ইনিংসে দেখে শুনেই খেলেছিলেন মুমিনুল। আর সে কারণেই তার ইনিংস আগ্রাসী মনে হয়েছে বলে জানান এই ব্যাটার, 'ফার্স্ট ইনিংসে অনেক সময় নিয়ে খেলেছি, হয়তো ফার্স্ট ইনিংসে… আমার মনে হয় আপনি যখন বলবেন তখন আপনার ওই বলাটার একটা ওয়ে থাকতে হবে। ওয়ে মানে আপনার এমন একটা শুনতেও ওই রকম লাগবে। আমি যদি রাইট আর্ম স্পিনারকে যদি এগিয়ে মারতাম তাহলে মনে হতো যে অ্যাগ্রেসিভ। আমি যেটা নিয়েছি, ক্যালকুলেটিভ রিস্ক। যেটা আমার কাছে মনে হয়।'

অথচ মুমিনুল যখন আউট হয়েছে সেটা ছিল চা বিরতির আগে শেষ ওভার। এমন সময়ে উইকেট বাঁচিয়ে সাজঘরে ফেরার কথাই চিন্তা করেন ব্যাটাররা। সেখানে মুমিনুল খেললেন ঝুঁকিপূর্ণ এক সুইপ। যা চলে যায় সরাসরি ফিল্ডারের হাতে। যদিও ওই সময় তার শটটা প্রয়োজনীয় ছিল তা স্বীকার করে নিয়েছেন তিনি, 'এটা যদি বলেন যে ড্রিংকস ওভারে আমি আউট হয়েছি ডেফিনিটলি আমার ফল্ট। ওই সময়ে ওই শট খেলা আমার উচিত হয় নাই।'

Comments

The Daily Star  | English
3rd tranche of IMF loan

IMF lowers Bangladesh’s economic growth forecast

Bangladesh economy to grow 5.7% in FY24, the lender says

16m ago